বন্ধুরা, ১৪ এপ্রিল ২০২৪ পহেলা বৈশাখ, যা রবিবারে পড়ছে। এটি বাংলাদেশের অফিশিয়াল ক্যালেন্ডার এর প্রথম দিন। তবে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ, ত্রিপুরা সহ বাংলা ভাষাভাষী এলাকাগুলোতে এই ক্যালেন্ডার কে গুরুত্ব দেয়া হয়। এখনো আপনারা যদি কোন বয়স্ক মানুষকে জিজ্ঞেস করেন যে বাংলার আজ কত তারিখ, সে ক্ষেত্রে তারা কিন্তু বাংলার তারিখ বলে দিতে পারবে কিন্তু যদি ইংরেজির তারিখ জিজ্ঞেস করা হয় তাহলে কিন্তু তারা এত সহজে বলতে পারে না। কারণ তারা ওই বাংলা ক্যালেন্ডার এর বাংলা তারিখে অভ্যস্ত।

Photo by Johannes Plenio from pexels.com

যাই হোক এই পহেলা বৈশাখে কেমন থাকবে তা অবশ্যই আমাদের জানা দরকার। এই পহেলা বৈশাখে স্কুল, কলেজ সহ বিভিন্ন ধরনের সরকারি এবং বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ছুটি থাকে। তবে রবিবার ছুটির দিনে পহেলা বৈশাখ পড়ায় এমনিতেই কিন্তু ছুটি থাকছে। যাই হক এই পহেলা বৈশাখে মানুষ বেড়াতে যাওয়াকে পছন্দ করে। যদি এই দিনের আবহাওয়া সম্পর্কে না জানা থাকে তাহলে বেড়াতে গিয়ে নানান সমস্যার সম্মুখীন হতে পারে। তাই চলুন আজ জেনে নেওয়া যাক যে কোথায় কেমন আবহাওয়া বিরাজ করবে।

দেখুন, ভারতের মধ্যে মধ্য ভারত বিশেষত মধ্যপ্রদেশের জবলপুর, কোরবা জেলাগুলিতে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। দক্ষিণ ভারতের মধ্যে হায়দ্রাবাদ এবং বেঙ্গালুরু রাজ্য ও মাদুরাইয়ের কিছু কিছু জায়গায় মেঘলা আকাশ থাকবে, সেই সঙ্গে হালকা বৃষ্টি। তবে পশ্চিমবঙ্গ, বাংলাদেশ, ত্রিপুরার কোন জেলাতেই বৃষ্টির তেমন কোন সম্ভাবনা নেই। ভারতের আসামের গৌহাটি এলাকায় হালকা মেঘলা আকাশ থাকবে তবে বৃষ্টির কোন সম্ভাবনা থাকবে না ।

যাইহোক পশ্চিমবঙ্গের দার্জিলিং, কালিম্পং, এবং কলকাতা ও বাংলাদেশের রাজশাহী অঞ্চলে দুপুরের পর হালকা মেঘের আস্তরণ দেখা দিতে পারে সেই সঙ্গে হয়তো মেঘের গর্জনও শোনা যেতে পারে, কিন্তু বৃষ্টির তেমন কোন সম্ভাবনা থাকবে না। আপনারা নিঃসন্দেহে ও এলাকাগুলোতেও বেড়াতে যেতে পারবেন, তবে কাছে একটা ছাতা রাখবেন কিন্তু ছাতার হয়তো প্রয়োজন নাও হতে পারে।

তবে বৃষ্টি হোক বা নাই হোক। তাপমাত্রা মোটামুটি ভালোই থাকবে পশ্চিমবঙ্গের উত্তরবঙ্গের দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কালিম্পং ও আলিপুরদুয়ার এই জেলাগুলি ছাড়া বাকি উত্তরবঙ্গের এবং দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস থেকে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত থাকতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *